Blog Details

ইস্ত্রি বা আয়রন করার নিয়ম জেনে রাখুন!

admin /


প্রথম দর্শনেই আপনার পরিধানের সুন্দর পরিচ্ছদটিই অন্যের সামনে আপনার ব্যক্তিত্ব বেশ খানিকটা তুলে ধরে। কিন্তু আপনি যত পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন কাপড়ই পরিধান করেন না কেন, তা যদি হয় কুচকানো তবে কাপড়ের সৌন্দর্য্য বলতে আর কিছু থাকেনা। সকালে উঠে অফিস, স্কুল-কলেজে বা কোথাও বেড়াতে যেতে চাইলে পরিধানের কাপড়টি আয়রণ করার ব্যাপারটা প্রাত্যহিক চিন্তার তালিকায় যেনো রয়ে যায়।

পরিধানের কাপড়টি সবসময় দামি হতে হবে এমন নয়, হাল্কা রঙের সাধারণ সুতির কাপড় হলেও সেটিকে সুন্দর করে তোলা যায়। ছেলেদের শার্ট-প্যান্ট থেকে শুরু করে মেয়েদের  সালোয়ার কামিজ অন্যান্য পোশাক সবক্ষেত্রেই আয়রণ করে পরিধান করাটা উচিত। কাপড় লন্ড্রী করে আয়রণ করে পড়লে কাপড়ের ভাজ যেমন ঠিক থাকে তেমনি থাকে নতুনের মত মসৃণ।

সবসময় ইস্ত্রি আয়রণ করানোর জন্য লন্ড্রী তে যাওয়া আসা করা বা কাপড় আনার জন্য অপেক্ষা করা সম্ভব হয়ে উঠেনা অনেকের। তাই বাসায় একটি ইস্ত্রি কিনে রাখাই উত্তম। এতে করে সময় টাকা কিছুটা বেচে যায়। আপনি যদি ইস্ত্রি কেনার চিন্তা করে থাকেন তবে কেনার আগে পরে ব্যবহারের সময় আপনার কিছু বিষয় অবশ্যই মনে রাখা উচিত। চলুন জেনে নেই-

) বর্তমানে বাজারে যে আয়রণ গুলো পাওয়া যায় তাতে পানি বা স্প্রে করার সুবিধাও আছে। আয়রণে একটি ওয়াটার চেম্বার থাকে হিটিং প্লেটের ছিদ্র দিয়ে জলীয়বাষ্প বের হয় , ফলে ইস্ত্রি করার সময় আর আলাদাভাবে পানি ছিটানোর প্রয়োজন হয়না। তাই কেনার সময় এই সুবিধা আছে কিনা দেখে নিন।

) বাজারে ব্র্যান্ড নন-ব্র্যান্ড দুই ধরনের আয়রণ পাওয়া যায়। ব্র্যান্ডের আয়রণ গুলোর ক্ষেত্রে বিক্রয়োত্তর সেবা পাওয়া সম্ভব।

) আয়রণ কেনার সময় হাল্কা মানে প্লাস্টিক বডি দেখে কিনবেন। ধরনের আয়রণ গুলো ব্যবহার করা সহজ।

) কাপড় অনুযায়ী তাপমাত্রা ঠিক করুন। যেমন-

-সুতি কাপড়ের ক্ষেত্রে ৪০০ ডিগ্রী ফারেনহাইট নির্ধারণ করুন।

-পলিয়েস্টার কাপড়ের ক্ষেত্রে ৩০০ ডিগ্রী ফারেনহাইটের মধ্যে রাখতে হয়, নয়তো কাপড় নষ্ট হয়ে যায়।

-সিল্ক মানে কোমল , হাল্কা সূক্ষ্ম মানের কাপড়। তাই ইস্ত্রি করার সময় তাপমাত্রা যেন ৩০০ ডিগ্রী ফারেনহাইটের বেশি না হয়।

- লিনেন টাইপের কাপড় কুঁচকে যায় বেশি তাই এগুলো ৪৪৫ ডিগ্রী ফারেনহাইট তাপমাত্রায় ইস্ত্রি করতে হয়।

-সিফন জর্জেট টাইপের কাপড় ইস্ত্রি করার প্রয়োজন খুব একটা পড়েনা তবে যদি করতে হয় ২৭৫ ডিগ্রী ফারেনহাইটের মধ্যেই করতে হবে।

-এছাড়া রেয়ন কাপড় ৩৭৫ ডিগ্রী, লাইক্রা কাপড় ২৭৫ ডিগ্রী উলের কাপড় ৩০০ ডিগ্রী ফারনেহাইটের মধ্যে হওয়া উচিত।

) সমতল অবস্থানে কাপড় আয়রণ করতে হয়।  তাই কাপড় আয়রণ করার সময় নিচে টেবিল বা মেঝেতে মোটা কাঁথা বিছিয়ে নিতে হয়।

) ব্লাউজ বা শার্ট ইস্ত্রি করার সময় প্রথমে হাতা কলার প্রথমে ইস্ত্রি করুন তারপর বাকিটুকু ইস্ত্রি করুন।

) বালিশের বা সোফার  কুশন  উল্টো করে ইস্ত্রি করুন। টেবিল ম্যাটে মনোগ্রাম থাকলে উল্টো দিক থেকে ইস্ত্রি করুন।

) হাতে করা ব্লক , হ্যান্ডপেইন্ট বা স্ক্রীনপ্রিন্ট করা কাপড়গুলো উলটো দিক থেকে ইস্ত্রি করলে রঙ ঠিক থাকে।

) যাদের প্রতিদিন পারফিউম ব্যবহার করতে হয় বা যে পারফিউমটি আপনার বিশেষ পছন্দের তা কাপড়ে স্প্রে করে তারপর ইস্ত্রি করুন। এতে পারফিউমের গন্ধটি অনেকদিনের জন্য স্থায়ী হবে।

১০) কাপড়ে আয়রণ করার সময় ছোট বাচ্চাদেরকে দূরে রাখুন।

১১) আয়রণ কানেক্ট করার সময় সুইচ বোর্ডের সাথে ভালভাবে কানেকশন চেক্ করে  নিন।

১২) কাপড় ইস্ত্রি করা হলে ঘন্টাখানেক কাপড় ঠান্ডা করে তারপর আলমারিতে রাখুন। এতে কাপড় অনেকদিন পর্যন্ত ভাল থাকবে।

১২) আয়রণ করা শেষ হলে প্লাগ আউট করতে নিরাপদ স্থানে রাখতে ভুলে যাবেন না।

উপরোক্ত বিষয়গুলো মনে রাখলে বাসায় আয়রণ ব্যবহার করা সহজ।

বাজারে বিভিন্ন ব্র্যান্ডের আয়রণ পাওয়া যায়। ব্র্যান্ডের আয়রণ এর দাম তুলনামূলক ননব্র্যান্ড আয়রণ থেকে বেশি। তবে Walton এর আয়রণ দাম মানে নির্ভরযোগ্য। Walton ব্র্যান্ডের আয়রণের মূল্য শুরু হয় ৭৩০  টাকা থেকে। Osellers থেকে Walton আয়রণ কিনে বুঝে নিন নিশ্চিত ক্যাশব্যাক।

 

 

 


COMMENTS (No Comment)
Leave your comment